ঢাকায় নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত লি জিমিং কোয়াড নিয়ে তার বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিয়েছেন। বুধবার (১২ মে) রাষ্ট্রদূতের কাছে তার বক্তব্যের ব্যাখ্যা চাইলে তিনি ব্যাখ্যা দেন বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন।

বুধবার রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় চীনা টিকা হস্তান্তর উপলক্ষে এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন, স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক, ঢাকায় নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত লি জিমিং ও পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন।

টিকা হস্তান্তর অনুষ্ঠান শেষে ঢাকায় নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত লি জিমিংয়ের সঙ্গে একান্ত একটি বৈঠক করেন পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন। এসময় পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন তার সঙ্গে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করেন। এক পর্যায়ে রাষ্ট্রদূতের কাছে কোয়াডে যোগ দেওয়া নিয়ে বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চান সচিব। তখন চীনা রাষ্ট্রদূত জানান, দুই দেশের সম্পর্কের ক্ষতি হবে, এমন কোনো বিষয় তিনি বোঝাননি। ভাষাগত কারণে এমনটা হয়েছে।

বৈঠকের বিষয়ে পররাষ্ট্র সচিব মাসুদ বিন মোমেন গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন, বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে সম্পর্কের ক্ষতি হবে, এমন কোনো বিষয় তিনি বোঝাননি। ভাষাগত কারণে ভুল বোঝাবুঝি হয়েছে।

গত সোমবার চীনা রাষ্ট্রদূত বলেছিলেন, যুক্তরাষ্ট্রের নেতৃত্বাধীন জোট কোয়াডে বাংলাদেশ যোগ দিলে বাংলাদেশ-চীন সম্পর্ক নষ্ট হবে। এ পরিপ্রেক্ষিতে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেছিলেন, চীনা রাষ্ট্রদূত আগ বাড়িয়ে এটা বলেছেন। এই জোটে যাওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়নি বাংলাদেশ। আর বাংলাদেশ কোন জোটে যাবে না যাবে সে সিদ্ধান্ত একান্তই বাংলাদেশের।

অর্থসূচক/এমএস