Bangladesh

সরকার ‘কুল’, বরিশালে হুলুস্থুল

 বরিশাল সরকারি কলেজের নাম বদল না করার দাবিতে কলেজের সাবেক ও বর্তমান শিক্ষার্থীদের উদ্যোগে গণস্বাক্ষর সংগ্রহ অভিযান (বামে), ডানে দাবিকারীদের সংবাদ সম্মেলন।

সরকারি বরিশাল কলেজের নাম পরিবর্তন নিয়ে উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে বরিশাল। গত কয়েকদিনের মতো দাবির পক্ষে-বিপক্ষে আজও হয়েছে  পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি। কলেজের সাবেক ও বর্তমান শিক্ষার্থীরা করেছেন নাম বহাল রাখার দাবিতে গণস্বাক্ষর আদায় কর্মসূচি। আর সংবাদ সম্মেলন করেছেন মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে নামকরণ বাস্তবায়ন কমিটি। তবে সরকারের শিক্ষা মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে বরিশাল শিক্ষা বোর্ডের মতামত জানতে চাইলেও উদ্ভূত পরিস্থিতিতে মত দিতে রাজি নয় সংস্থাটি।

বরিশাল সরকারি কলেজটি যে জায়গাটিতে গড়ে উঠেছে সে বাড়িটি বরিশালের কীর্তিমান পুরুষ মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্তের। তাই এই কলেজের নামকরণ এই বিশিষ্ট ব্যক্তির নামে করার জন্য দীর্ঘদিনের দাবি জেলার সংস্কৃতিসেবী ও প্রগতিশীল রাজনৈতিক দলগুলোর। তবে গত ৩০ বছর ধরে শাসন ক্ষমতায় থাকা রাজনৈতিক দলগুলোর নেতাদের দাবি, এই কলেজ তাদের আন্দোলনের ফসল। ফলে এতে অশ্বিনী কুমারের কোনও অবদান নেই। সাংস্কৃতিক কর্মীদের দাবির মুখে সরকারি বরিশাল কলেজের নাম পরিবর্তন করে মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে নামকরণের একটি প্রস্তাব গত ফেব্রুয়ারি মাসে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে পাঠান জেলা প্রশাসক এসএম অজিয়র রহমান। এই দাবিটি শিক্ষা মন্ত্রণালয়ে তুলে ধরার পর থেকেই আন্দোলনমুখী ছিলেন বরিশাল সরকারি কলেজের বর্তমান ও সাবেক ছাত্ররা। করোনার কারণে গত চার মাস সরব না থাকলেও এবার তারা নাম বদলের বিপক্ষে মাঠে নেমেছেন। আর পাল্টা হিসেবে নাম বদলের দাবিতে শহরে বিক্ষোভ মিছিল, সংবাদ সম্মেলন ইত্যাদি করছে অপর পক্ষ।   

বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় নগরীর সদর রোডে সরকারি বরিশাল কলেজের নাম অপরিবর্তিত রাখার দাবিতে ৭ দিনের গণস্বাক্ষর আদায় কর্মসূচির দ্বিতীয় দিনেও বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষের গণস্বাক্ষর আদায় করেন কলেজের বর্তমান ও সাবেক শিক্ষার্থীরা। এ সময় তারা কলেজের নাম পরিবর্তনের প্রস্তাব ফিরিয়ে আনার জন্য জেলা প্রশাসনের প্রতি আহ্বান জানান। এই দাবিতে গণতান্ত্রিক আন্দোলন চালিয়ে যাওয়ার হুঁশিয়ারি দেন ছাত্রনেতারা।

একই সময় সরকারি বরিশাল কলেজকে মহাত্মা অশ্বিনী কুমার দত্তের নামে নামকরণ বাস্তবায়ন কমিটি টাউন হলের সামনে সংবাদ সম্মেলন করে তাদের দাবি ব্যক্ত করেন। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন কমিটির আহ্বায়ক মানবেন্দ্র বটব্যাল। পরে নেতৃবৃন্দ জেলা প্রশাসক এসএম অজিয়র রহমানের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী এবং শিক্ষামন্ত্রী বরাবর পৃথক স্মারকলিপি দেন।

এদিকে কলেজের নাম পরিবর্তন ইস্যুতে টানা দ্বিতীয় দিনের মতো নগরীর ব্যস্ততম সদর রোডে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচিতে যানবাহন চলাচলে প্রতিবন্ধকতার সৃষ্টি হয়। জনদুর্ভোগ চরমে ওঠে। একইস্থানে পক্ষে-বিপক্ষের কর্মসূচিতে সাময়িক উত্তেজনা ছড়ায় সদর রোডে। তবে বিপুল সংখ্যক পুলিশ সতর্কাবস্থায় থাকায় কোনও অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি।

এদিকে, নামবদলের প্রস্তাব পাওয়ার পর এ বিষয়ে বরিশাল শিক্ষা বোর্ডের মতামত চেয়েছে শিক্ষা মন্ত্রণালয়। তবে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে এ বিষয়ে মন্ত্রণালয়ে কোনও মতামত না দেওয়ার কথা জানিয়েছেন বোর্ড চেয়ারম্যান প্রফেসর মো. ইউনুস।

Football news:

Coach Of Brentford: We went from a mid-level team to the third team of the season. This is an incredible achievement
Burnley are not going to sell Tarkowski for less than 50 million pounds
Lester wants to rent Trincou at Barca with the obligation of ransom for 50 million pounds
Scott Parker: Fulham have a lot to progress. And I am happy about it
Manchester United are threatening to pull out of negotiations for Sancho if Borussia do not reduce the price from 120 million euros
Cesc about Casillas: You are a mirror to look into
Lone mascots are another symbol of the year